Home / আজকের পত্রিকা / নওগাঁয় ওএমএস এর ৬০ বস্তা চালসহ ১৭০ টি খালি বস্তা উদ্ধার/

নওগাঁয় ওএমএস এর ৬০ বস্তা চালসহ ১৭০ টি খালি বস্তা উদ্ধার/

নওগাঁ প্রতিনিধি ঃ নওগাঁ সদর উপজেলার বর্ষাইল ইউনিয়নের মার্মা মল্লিকপুরে সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি (ওএমএস) এর ১০ টাকা কেজির ৬০ বস্তা চালসহ ১৭০টি খালি বস্তা উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন এর নেতৃত্বে সদর থানা পুলিশ উপজেলার বর্ষাইল ইউনিয়নের মার্মা মল্লিকপুর গ্রামের আব্দুর রউফ(৩২) ও আব্দুল কাইয়ুম(৫৫) এর বাড়ী থেকে এই চাল ও বস্তাগুলো উদ্ধার করে।
স্থানীয় ও থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রবিবার (৫ এপ্রিল) থেকে সরকারের নির্দেশে নওগাঁ জেলায় হতদরিদ্র ও অসহায়দের মাঝে ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিক্রি শুরু হয়। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১১টায় থানা পুলিশ ডিলার আবু সাইদের শ্যালক মার্মা মল্লিকপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে আব্দুর রউফ ও পাশ্ববর্তী তমিজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুল কাইয়ুমের বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করে। পরে আব্দুর রউফ এর বাড়ী থেকে ৪২ বস্তা চাল (৩০ কেজি) ও ১৭০টি খালি বস্তা এবং আব্দুল কাইয়ুমের বাড়ি থেকে ১৮ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত চাল জব্দ করে নওগাঁ সদর থানার জিম্মায় রাখা হয়েছে। ওএমএসের ডিলার আবু সাঈদ বর্ষাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সামছুজ্জোহা ঘুটুর ভাতিজা।
নওগাঁ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ওএমএস এর ডিলার আবু সাঈদ তার নামে বরাদ্দকৃত চাল থেকে উদ্ধারকৃত চাল কালো বাজারে বিক্রির উদ্দেশ্যে পাচার করে তার শ্যালক আব্দুর রউফ ও পাশ্ববর্তী আব্দুল কাইয়ুমের বাড়িতে রাখে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায় সেখানে সরকারী নির্দিষ্ট বস্তা থেকে চালগুলো অন্য বস্তায় রিপ্যাকেটিং করা হচ্ছে। এসময় ওই গ্রামে অভিযান চালিয়ে সরকারি চাল ও খালি বস্তা উদ্ধার করা হয়েছে। এব্যাপারে ডিলার আবু সাইদ, আব্দুর রউফ ও আব্দুল কাইয়ুমসহ অজ্ঞাতনামা আসামী করে নওগাঁ সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। আসামীরা পলাতক থাকায় এখনো তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি।

আরমান হোসেন রুমন
নওগাঁ।
১৫.০৪.২০২০
(ছবি আছে)
নওগাঁয় ওএমএস এর ৬০ বস্তা চালসহ ১৭০ টি খালি বস্তা উদ্ধার
নওগাঁ প্রতিনিধি ঃ নওগাঁ সদর উপজেলার বর্ষাইল ইউনিয়নের মার্মা মল্লিকপুরে সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি (ওএমএস) এর ১০ টাকা কেজির ৬০ বস্তা চালসহ ১৭০টি খালি বস্তা উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন এর নেতৃত্বে সদর থানা পুলিশ উপজেলার বর্ষাইল ইউনিয়নের মার্মা মল্লিকপুর গ্রামের আব্দুর রউফ(৩২) ও আব্দুল কাইয়ুম(৫৫) এর বাড়ী থেকে এই চাল ও বস্তাগুলো উদ্ধার করে।
স্থানীয় ও থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রবিবার (৫ এপ্রিল) থেকে সরকারের নির্দেশে নওগাঁ জেলায় হতদরিদ্র ও অসহায়দের মাঝে ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিক্রি শুরু হয়। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১১টায় থানা পুলিশ ডিলার আবু সাইদের শ্যালক মার্মা মল্লিকপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে আব্দুর রউফ ও পাশ্ববর্তী তমিজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুল কাইয়ুমের বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করে। পরে আব্দুর রউফ এর বাড়ী থেকে ৪২ বস্তা চাল (৩০ কেজি) ও ১৭০টি খালি বস্তা এবং আব্দুল কাইয়ুমের বাড়ি থেকে ১৮ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত চাল জব্দ করে নওগাঁ সদর থানার জিম্মায় রাখা হয়েছে। ওএমএসের ডিলার আবু সাঈদ বর্ষাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সামছুজ্জোহা ঘুটুর ভাতিজা।
নওগাঁ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ওএমএস এর ডিলার আবু সাঈদ তার নামে বরাদ্দকৃত চাল থেকে উদ্ধারকৃত চাল কালো বাজারে বিক্রির উদ্দেশ্যে পাচার করে তার শ্যালক আব্দুর রউফ ও পাশ্ববর্তী আব্দুল কাইয়ুমের বাড়িতে রাখে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায় সেখানে সরকারী নির্দিষ্ট বস্তা থেকে চালগুলো অন্য বস্তায় রিপ্যাকেটিং করা হচ্ছে। এসময় ওই গ্রামে অভিযান চালিয়ে সরকারি চাল ও খালি বস্তা উদ্ধার করা হয়েছে। এব্যাপারে ডিলার আবু সাইদ, আব্দুর রউফ ও আব্দুল কাইয়ুমসহ অজ্ঞাতনামা আসামী করে নওগাঁ সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। আসামীরা পলাতক থাকায় এখনো তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি।

আরমান হোসেন রুমন
নওগাঁ।
১৫.০৪.২০২০

Please follow and like us:

Check Also

 ১০ মে, ২০২০ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া এক রোগীকে দাফন করা হচ্ছে। করোনা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

RSS
Follow by Email

Website Design, Developed & Hosted by ALL IT BD