Breaking News
Home / অন্যান্য / ধর্ম / পুরুষের টাখনুর নিচে কাপড় পরার অপকারিতা

পুরুষের টাখনুর নিচে কাপড় পরার অপকারিতা

টাখনুর উপর কাপড় পরা, ইসলাম কী বলে?

অনেক সময় দেখা যায় নামাজের জামাত শুরু হওয়ার আগে মুসল্লিদের কেউ কেউ নিজেদের পায়জামা, প্যান্ট, লুঙ্গি ইত্যাদি টাখনু গিরার ওপর তুলে নিচ্ছেন বা ইমাম সাহেব বলে দিচ্ছেন, ‘কাপড় টাখনুর উপরে তুলে নিন। এতে মনে হয় শুধু নামাজের সময়ই কাপড় টাখনুর উপর তুলতে হবে; অথচ বিষয়টি শুধু নামাজের সঙ্গে সম্পৃক্ত নয়।

পুরুষের জন্য নামাজের ভেতরে-বাইরে সর্বাবস্থায় কাপড় টাখনুর নিচে পরিধান করা কবিরা গুনাহ। এ বিষয়ে হাদিসে কঠোর হুশিয়ারি উচ্চারিত হয়েছে। নিচে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি হাদিস তুলে ধরা হলো-

হজরত আবু হুরায়রা (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসূলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘লুঙ্গির যে অংশ টাখনুর নিচে থাকবে তা জাহান্নামে যাবে।’ (বুখারি : হাদিস নম্বর- ৫৭৮৭)

হজরত আবু যর (রা.) বলেন, রাসূল সা. বলেছেন, কিয়ামতের দিন আল্লাহ তায়ালা তিন ব্যক্তির সঙ্গে কথা তো বলবেনই না বরং তাদের দিকে তাকিয়েও দেখবেন না। এমনকী তিনি তাদেরকে গুনাহ থেকে পবিত্র করবেন না বরং তাদের জন্য রয়েছে কষ্টদায়ক শাস্তি। আমি জিজ্ঞাসা করলাম, তারা কারা? তবে এরা তো ধ্বংশ, তাদের বাঁচার কোনো রাস্তা নেই। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এ কথা তিনবার বলেছেন। তারা হলো-

(১) যে ব্যক্তি টাখনুর নিচে ঝুলিয়ে কাপড় পরে।

(২) যে ব্যক্তি মিথ্যা কসম খেয়ে ব্যাবসার পণ্য বিক্রি করে।

(৩) যে ব্যক্তি কারো উপকার করে আবার খোটা দেয়। (মুসলিম, তিরমিজি, আবু দাউদ ও ইবনে মাজাহ)

রাসূল সাল্লাল্লাহু (আ.) থেকে বর্ণনা করে হজরত আবু হুরায়রা (রা.) বলেন, ‘লুঙ্গির যে অংশ টাখনুর নিচে থাকবে তা আগুনে প্রজ্জ্বলিত হবে।’ (বুখারি)

রাসূলুল্লাহ (সা.) আরো বলেছেন, ‘পুরুষের শরীরের যে কোনো পোশাক টাখনুর নিচে ঝুলে পড়া হারাম। পোশাক যদি টাখনুর নিচে ঝুলে যায়, তাহলে টাখনুর নিচের ওই অংশকে জাহান্নামের অংশ বলে ধরা হবে।’ (বুখারি)

হজরত জাবের ইবনে সুলাইম রা. হতে বর্ণিত, রাসূল (সা.) বলেন, টাখনুর নিচে ঝুলিয়ে কাপড় পড়ার ব্যাপারে সাবধান হও। কারণ, তা অহংকারের অন্তর্ভুক্ত। আর আল্লাহ অহংকার করাকে পছন্দ করেন না। (আবু দাউদ)

আমাদের অনেকের মনে প্রশ্ন জাগতে পারে, আমরা টাখনুর নিচে কাপড় পরলে ধর্মের কী অসুবিধা? তার সরল উত্তর হলো, অসুবিধা ধর্মের নয়, অসুবিধা আমাদের নিজেদের। কারণ দুনিয়াতেও টাখনুর নিচে কাপড় পরার অপকারিতা কম নয়।

পুরুষের পায়ের টাখনুতে থাকে টেস্টোস্টেরন নামক যৌন হরমোন, যা সঠিকভাবে কাজ করার জন্য প্রাকৃতিক আলো-বাতাসের প্রয়োজন। টাখনুকে ঢেকে রাখলে টেস্টোস্টেরন হরমোন শুকিয়ে যায়। যার প্রভাবে শরীরে অনেক রকম সমস্যা দেখা দেয়। শুক্রাণু কমে যায়। ফলে সহজে বাচ্চা হয় না। স্মৃতিশক্তিও কমে আসে ধীরে ধীরে। এসব কারণেই হয়ত রাসূল (সা.) বিভিন্ন হাদিসে টাখনুর নিচে কাপড় পরাকে নিষিদ্ধ করেছেন।

নারীদের ক্ষেত্রে তা ঠিক উল্টা, নারীরা টাকনুর নিচে কাপড় না পড়লে উক্ত সমস্যা দেখা দেবে।

Please follow and like us:

Check Also

রাসূলুল্লাহ সা:-এর সামাজিক যোগাযোগ

সাধারণত যারা রাজনৈতিক নেতা, সরকারের মন্ত্রী বা বড় কোনো প্রতিষ্ঠানের কর্তাব্যক্তি হন, তারা সব শ্রেণীর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

RSS
Follow by Email
Facebook
Twitter

Website Design, Developed & Hosted by ALL IT BD